31 C
Dhaka
Wednesday, October 28, 2020
Home Technology Research & Development অটোমোবাইলে ননওভেনের প্রয়োগ | Application of Nonwoven on Automobile.

অটোমোবাইলে ননওভেনের প্রয়োগ | Application of Nonwoven on Automobile.

মানবজাতি প্রজন্মের পর প্রজন্ম ধরে টেক্সটাইলের সাথে পরিচিত। বিস্তৃত দৃষ্টিভঙ্গিতে এটি প্রদর্শিত হয় যে পোশাকের উদ্দেশ্য ছাড়া টেক্সটাইলের আর কোন প্রয়োগ নেই। তবে প্রকৃতপক্ষে টেক্সটাইল নন-পোশাক আইটেম যেমন: টেকনিক্যাল টেক্সটাইল ( প্রযুক্তিগত টেক্সটাইল) হিসেবে ব্যাপকভাবে ব্যবহৃত হচ্ছে। বর্তমানে টেক্সটাইল শিল্পের জনপ্রিয় সেক্টর টেকনিক্যাল টেক্সটাইল এর ক্ষেত্রে ননওভেন ফেব্রিক বহুলপরিচিতি লাভ করেছে। টেকনিক্যাল টেক্সটাইল শিল্পের অটোমোবাইল অথবা অটোমোটিভ সেকশনে ননওভেন ফেব্রিকের ব্যবহার অবাক করার মতন। গাড়িচালানোর সময় চালক না জানলেও ননওভেন ফেব্রিক অটোমোবাইলে ব্যাপকভাবে ব্যবহৃত হচ্ছে। প্রকৃতপক্ষে , প্রতিটি গাড়ির ভিতরে গড়ে প্রায় ৩৮ গজ ননওভেন ফেব্রিক ব্যবহৃত হয়ে থাকে।

এখন আমরা জানব ননওভেন এবং অটোমোটিভ টেক্সটাইল কি?

ননওভেন( Nonwoven ): ননওভেন হচ্ছে ফেব্রিক তৈরির একটা প্রক্রিয়া। ননওভেন ফেব্রিক মূলত যান্ত্রিকভাবে , তাপীয় বা রাসায়নিকভাবে ফাইবার বা ফিলামেন্টগুলিকে জড়িয়ে একত্রে আবদ্ধ করে শিট বা ওয়েব স্ট্রাকচার হিসেবে সংজ্ঞায়িত করা হয়। ননওভেন প্রক্রিয়ায় ফেব্রিক তৈরির জন্য ওভেন এবং নিটেড ফেব্রিকের মতন সুতা তৈরির প্রয়োজন হয় না। ননওভেন ফেব্রিক ফ্ল্যাট , নমনীয় , ছিদ্রযুক্ত শীট স্ট্রাকচার যা ফাইবার , ফিলামেন্টস বা ফিল্মের মতো ফিলামেন্টারি স্ট্রাকচারের ইন্টারলকিং স্তর বা নেটওয়ার্ক দ্বারা উৎপাদিত হয়।

অটোমোটিভ টেক্সটাইল(Automotive Textile): অটোমোটিভ টেক্সটাইল হল টেক্সটাইলের সেই অংশ যা যানবাহন তৈরিতে ব্যবহৃত হয়। এই শাখা অটোমোবাইল শাখা হিসাবে বিশ্ব দরবারে পরিচিতি পেয়েছে। এই শিল্প সেক্টরটি হালকা ওজনের যানবাহন থেকে ভারী ট্রাক বা শুল্কের যানবাহন তৈরিতে ব্যাপকভাবে ব্যবহৃত হয়।

ননওভেন এবং অটোমোবাইল: অটোমোবাইল শিল্পে ননওভেনের ব্যবহার সাম্প্রতিক বছরগুলোতে যথেষ্ঠ বৃদ্ধি পাচ্ছে। ট্রাঙ্ক লাইনার এবং কার্পেট থেকে শুরু করে এয়ার এবং জ্বালানি ফিল্টার পর্যন্ত আজ ৪০ টিরও বেশি অটোমোবাইল অথবা মোটরগাড়ির অংশ ননওভেন কাপড় দিয়ে তৈরি। ননওভেন এখন অটোমোবাইল টেক্সটাইল অথবা অটোমোটিভ টেক্সটাইল হিসেবে পরিচিতি লাভ করেছে। পলিএস্টার(Polyester), নাইলন ( Nylon ), পলিএস্টার এবং নাইলন ব্লেন্ডিং ,পলিভিনাইল ক্লোরাইড (PVC) কোটেড ,কার্বন অথবা এরামিড (Aramid),গ্লাস , রেয়ন ,পলিপ্রপিলিন (Polypropylene or PP), পলিইথিলিন টেলিপথেলেট(Polyethylene terephthalate or PET ) ইত্যাদি ফাইবার থেকে তৈরি ননওভেন ফেব্রিক আটোমোবাইলের বিভিন্ন কম্পোনেটস(components) তৈরিতে ব্যবহৃত হচ্ছে।

অটোমোবাইলের উপর ননওভেন ফেব্রিকের টেকনিক্যাল পারফরমেন্সের কয়েকটি নির্ণায়ক: ননওভেন ফেব্রিক নিজস্ব কিছু বৈশিষ্ট্যের জন্য অটোমোবাইলে প্রয়োগের ক্ষেত্রে বেটার (better) পারফরমেন্স প্রদর্শন করে থাকে । এসব বৈশিষ্ট্যের মধ্যে উল্লেখযোগ্য কয়েকটি হচ্ছে –

• কালারের অভিনবত্ব
• লাইট ফাস্টনেস (তাপমাত্রা এবং আল্টাভায়োলেট ক্ষয়ের প্রভাব প্রতিরোধকারী )
• টেকসই আবরণ প্রদানকারী
• অগ্নিশিখা প্রতিরোধের ক্ষমতা
• ক্লিনিং , শব্দ শোষণ , স্থির বৈদ্যুতিকরণ ক্ষমতা
• গঠনযোগ্যতা এবং স্থায়িত্ব

অটোমোবাইলগুলো তে ননওভেন এত বেশি ব্যবহার করা হয় কারণ ননওভেন টেকসই , ওজনে হাল্কা এবং সহজেই ছাঁচে ফেলে আকৃতি দেয়া সম্ভব এবং এটা সাশ্রয়ী। ননওভেন কাপড় সেলাই করা , কাটিং , ডাইং এবং লেমেনেটিং সহজ।

অটোমোবাইল শিল্পে ব্যবহৃত ননওভেন প্রযুক্তি: অটোমোবাইলে যেসব ননওভেন ফেব্রিক ব্যবহৃত হয় তা নিম্নোক্ত ননওভেন প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে তৈরি করা হয়।

• ড্রাইলেইড (Drylaid)
• স্পানলেইড(Spunlaid)
• মেল্টব্লউন ( Meltblown)
• নিডল পাঞ্চড( Needle Punched)
• থার্মাল বন্ড(Thermal Bond )
• হাইড্রোএন্ট্যাগেলমেন্ট(Hydro-entanglement)

অটোমোবাইলের বিভিন্ন পার্টস( parts) তৈরিতে ননওভেনের ব্যবহার: একটা অটোমোবাইলের বিভিন্ন কম্পোনেন্টস তৈরিতে ননওভেন প্রযুক্তিকে ব্যবহার করা হচ্ছে যার মধ্যে উল্লেখযোগ্য কয়েকটি অটোমোবাইলের পার্টস তৈরিতে ননওভেনের ব্যবহার আলোচনা করা হলো-

  • হেডলাইনারস (Headliners): হেডলাইনারস হচ্ছে মডুলার পার্টস যা গাড়ির অভ্যন্তর ছাদে শক্তভাবে লাগান থাকে। এটি শব্দ শোষণ , তাপ নিরোধক এর কাজ করে এবং এটি ওজনে হালকা হয়। ননওভেন ফেব্রিক গাড়ির এই  হেডলাইনারস তৈরিতে ব্যবহৃত হয়। নির্দিষ্ট মডিউলের ইঞ্জিনিয়ারিং ডিজাইনের উপর নির্ভর করে ননওভেন ফেব্রিক দিয়ে সাধারণত হেডলাইনার এর ফেসিং, বেকিং তৈরি হয়। এক্ষেত্রে যে ননওভেন ফেব্রিক ব্যবহার করা হয় তা নিডল পাঞ্চড পদ্ধতিতে উৎপন্ন হয়।
  • বনেট লাইনারস ( Bonnet liners) : এটা সাধারণত গাড়ির ইঞ্জিনকে একটা সুরক্ষা আবরণ প্রদান করে থাকে। ননওভেন ফেন্রিক যা নিডল পাঞ্চড অথবা  ড্রাই –লেইড কেমিক্যাল বন্ড এর মাধ্যমে তৈরি হয় তা দ্বারাই এই বনেট লাইনারস প্রস্তুত করা হয়।
  • ট্রাঙ্ক লাইনারস অথবা বুট লাইনারস ( Trunk or Boot liners ): বুট এবং মালবাহী কম্পার্টমেণ্ট গুলোতে ননওভেন ফেব্রিকের ব্যবহার দেখা যায়।
  • দরজা এবং পার্সেল শেল্ফ ( Door and Parcel shelf ):  দরজার মধ্যে প্যানেল ট্রিমে যে আন্ডারলাইনিং রিইনফোর্সমেণ্ট ফেব্রিক এবং লেয়ার ফেসিং ফেব্রিক ব্যবহৃত হয় তা মূলত ননওভেন পদ্ধতিতেই তৈরি হয়।
  • মোল্ডিং (Molding ): ননওভেন  ফেব্রিক অটোমোবাইলের জন্য মোল্ডিং এবং পৃষ্ঠ উপাদান হিসেবে ব্যবহৃত হচ্ছে। একটা গবেষণায় দেখা গিয়েছে , ১৫০ থেকে ২০০ গ্রাম/ মিটার এর একক ক্ষেত্রের মধ্যে ফাইবার ওয়েবের সমন্বয়ে ননওভেন ফেব্রিকের ছাঁচ নির্মাণ করা হয়। ননওভেন ফেব্রিক দ্বারা মোল্ডিং অথবা ছাঁচ নিমার্ণের জন্য ৭ গ্রাম/ মিটার এর মতন বাইন্ডারের প্রয়োজন হয় ফাইবার বন্ডিং এর জন্য।
  • অটোমোটিভ কার্পেট ( Automotive carpet ): ননওভেন সাধারণত  প্রাইমারি এবং সেকেন্ডারি ব্যাকিং এর জন্য অটোমোটিভ কার্পেট গুলিতে ব্যবহৃত হয়। এই কার্পেটের কারণেই গাড়ির চালক গাড়ির উৎপন্ন তাপ সহ্য করতে পারে।
  • গাড়ির সিট(Seat): অটোমোবাইলের সিট ননওভেন ফেব্রিক দিয়ে তৈরি যা সাধারণত নিডল পাঞ্চড , হাইড্রোএন্ট্যাগেলমেন্ট, স্পানলেইড এর মাধ্যমে তৈরি হয় । সিটের ফেসিং হিসেবে যে ননওভেন ফেব্রিক ব্যবহৃত হয় তাতে পলিইউরেথিন রেজিন অথবা পিগমেন্টেড পিভিসি এর কোটিং দেয়া থাকে যা সাধারণত লেদার সিটের পার্শ্ব প্যানেট হিশেবে ব্যবহৃত হয়।
  • ফ্লোরকভারিং(Floor-covering): ফ্লোরকভারিং এ যে অটোমোটিভ ফেসিং ব্যবহৃত হয় তা স্পান-ডায়েড পলিপ্রপিলিন অথবা পলিভিনাইল ক্লোরাইড ফাইবার থেকে নিডল-পাঞ্চড প্রযুক্তিতে তৈরি ননওভেন ফেব্রিক।
  • শব্দ প্রতিরোধক (Acoustic insulation ) : গাড়ির কেবিনে যে শব্দ প্রতিরোধক ব্যবহৃত হয় যা শব্দকে কম করবে তাও ননওভেণ প্রযুক্তির দান।
  • অটোমোটিভ ননওভেন ফিল্টার(Automotive nonwoven filter) : বায়ু পরিস্রাবণের দক্ষতার কারণে ননওভেন ফেব্রিকের ফিল্টার মিডিয়া সাধারণত অটোমোবাইলের  জ্বালানি , লুবরিকেটিন তেল এবং এয়ার পরিস্রাবণে গুরুত্বপূর্ণ।
  • অন্যান্য পার্টস (other parts ) যেমন : গাড়ির ওয়ার ইন্সুলেশন , হোসেস , হাউজিং এ তাত-নিরোধক ননওভেন ফেব্রিক ব্যবহৃত হয় গাড়িকে তাপীয় ক্ষয় থেকে রক্ষা করার জন্য । এক্ষেত্রে গ্লাস ফাইবার থেকে তৈরি ননওভেন প্রধানত সাশ্রয়ী হয়ে থাকে।

অটোমোবাইল শিল্পে ননওভেনের ভবিষ্যৎ: পূর্ব রাশিয়া , চীন এবং ভারত দেশগুলোতে অটোমোবাইল শিল্পে ননওভেনের ব্যবহার বাড়বে বলে ধারণা করা হচ্ছে। সাধারণত সিন্থেটিক পলিমারের মতন কাঁচামালের ক্রমবর্ধমান মূল্য এর কারণে গাড়ির কম্পোনেন্টস নির্মাণ এবং সমাবেশের জন্য সাশ্রয়ী উপাদান হিসেবে ননওভেন ফেব্রিক এর ব্যবহার বৃদ্ধি পাবে। যেহেতু হেডলাইনারস এবং ফ্লোর মডিউলের ক্ষেত্রে প্রাকৃতিক ফাইবার থেকে তৈরি নন-স্ট্রাকচারাল কম্পোজিট রিইনফোর্সড(non-structural composite reinforced) উন্নতি সাধন করেছে সেহেতু ভবিষ্যতে নন-ওভেন ফেব্রিকের গুরুত্ব আরও বাড়বে। যেহেতু সারাবিশ্ব এখন টেকসইতার দিকে ঝুঁকেছে তাই অটোমোবাইলগুলো এমণভাবে ডিজাইন করা হচ্ছে যা সহজেই ভেঙ্গে ফেলা যাবে , রি-ইউজ এবং রি-সাইক্লেলিং সম্ভব হবে এদের ব্যবহার ফুরিয়ে যাবার পর। এসব কিছুই ননওভেন ফেব্রিকের মাধ্যমে সম্ভব হবে। বিশেষ ননওভেনগুলো বি.এম.ডাব্লু(BMW) সিরিজের উদ্যোগের কেন্দ্রবিন্দুতে রয়েছে যা মোটরগাড়ি শিল্পের চেহারা পুরোপুরি বদলাতে চায়।

বাংলাদেশে টেকনিক্যাল টেক্সটাইলের প্রসার তেমনভাবে ঘটেনি। এখনও অটোমোবাইলে ননওভেনের প্রয়োগ বিষয়ক কোন কাজ শুরুই হয় নি ।কিন্তু বিশ্ববাজারে টিকে থাকতে হলে এই বিষয়গুলি নিয়ে বাংলাদেশের টেক্সটাইল শিল্পে যথাযত প্রস্ততিমূলক উদ্যোগ গ্রহণ করা প্রয়োজন।

রেফারেন্স(Reference):
https: //texanalys.blogpost.com
https://indiantextilejournal.com
https:// www.edana.org

Writer:
Puja Kundu
BUTEX
Research Assistant, Bunon

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular

নিটারের শিক্ষার্থীদের নাসা স্পেস অ্যাপস চ্যালেঞ্জ জয়

টানা ষষ্ঠবারের মতো বেসিসের তত্ত্বাবধানে এবং বেসিস স্টুডেন্টস ফোরামের সহায়তায় যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় মহাকাশ সংস্থা নাসার উদ্যোগে আঞ্চলিক পর্যায়ে অনুষ্ঠিত হয়ে গেছে...

লিভিং অর্গানিজম থেকে টেকসই টেক্সটাইলের উদ্ভাবন: পরিবেশ বান্ধব টেক্সটাইলের দিকে অগ্রযাত্রা

টেক্সটাইল শিল্প হল ভোক্তা পণ্য উৎপাদনের বিশ্বের প্রাচীনতম শাখা। এটি একটি বৈচিত্র্যপূর্ণ এবং বৈষম্যময় সেক্টর যেখানে প্রাকৃতিক ও রাসায়নিক ফাইবার (যেমন:...

করোনা প্রতিরোধে গাঁজার মাস্ক!

পরিবেশ দূষণের জন্য বিশ্বজোড়া আন্দোলন চলছে। তবুও পরিবেশ রক্ষায় মানুষ এখনও অনেকটাই সচেতন নয়। এতদিন মানুষই পরিবেশের ক্ষতি করতেন। এবার সেখানেও...

ডুয়েটে মাইক্রোসফট এক্সেল বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত

ঢাকা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়,গাজীপুরের টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের "ডুয়েট টেক্সটাইল ক্যারিয়ার এন্ড রিসার্চ ক্লাব ( DTCRC) "শিক্ষার্থীদের সফটস্কিল ডেভেলপমেন্টের লক্ষে মাইক্রোসফট...

করোনা মোকাবেলায় অসচ্ছলদের জন্য ইসাথির ব্যতিক্রমী উদ্যোগ “মানবিক উপহার”

সারা বিশ্ব যখন করোনার মহামারিতে আক্রান্ত, স্থবির হয়ে গেছে মানুষের জীবনযাত্রা, ভেঙ্গে গেছে অর্থনৈতিক অগ্রযাত্রা তখন বাংলাদেশও এর ব্যতিক্রম নয়।

রেশমের রহস্য | Silk Fibre

এক ধরনের প্রাকৃতিক প্রোটিন তন্তু, যার কয়েকটি ধরন বস্ত্রশিল্প বয়নের কাজে ব্যবহার করা হয়। রেশমের সর্বাধিক পরিচিত ধরন বম্বিক্স মোরি নামের...

‘রিসোনেন্স’ আমেরিকার ১০ জন ফ্যাশন ডিজাইনারকে ৫০০০০ ডলার সহয়তা প্রদান করবে | Resonance to Donate US $50,000 to 10 Black Fashion Designers.

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে কৃষ্ণাঙ্গদের বিরুদ্ধে বর্ণ বৈষম্য এবং সহিংসতার ইতিহাস বেশ পুরানো। দেশটির জন্মলগ্ন থেকেই বলা যায় কৃষ্ণাঙ্গদের বিরুদ্ধে বর্ণ বৈষম্য চলে...